রাজশাহী সারা দেশ

সান্তাহার থেকে চলাচল করছে আরও ৭টি ট্রেন

নেহাল আহম্মেদ প্রান্ত

বিধিনিষেধের কারণে দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে  ট্রেন চলাচল বন্ধ ছিল।মহামারির সংক্রমণ পরিস্থিতি সামাল দিতে দীর্ঘ সময় বন্ধ থাকার পর আজ থেকে ফের রেলের বহরে ছুটবে আরও ৯ জোড়া আন্তঃনগর ও ১০ জোড়া মেইল ও কমিউটারসহ ১৯ জোড়া ট্রেন।

রেলপথ মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, লকডাউনের কারণে গত ৫ এপ্রিল সব যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। পরে ২৪ মে থেকে আসনের অর্ধেক যাত্রী নিয়ে ২৪ জোড়া আন্তঃনগর এবং ৯ জোড়া মেইল ও লোকাল ট্রেন চলছে। বর্তমানে আন্তঃনগর ট্রেনের সব টিকিট অনলাইন ও অ্যাপে বিক্রি হচ্ছে। এরই মধ্যে মঙ্গলবার (৮ জুন) থেকে অর্ধেক টিকিট স্টেশনের কাউন্টার থেকে বিক্রি শুরু হয়েছে।

এর ধারাবাহিকতায় সান্তাহার স্টেশন থেকে ৭টি আন্তনগর ও ২টি কমিউটার ট্রেনসহ মোট ৭টি ট্রেন বুধবার ফের চলাচল করছে।সান্তাহার জংশন স্টেশন থেকে আন্তঃনগর যেসব ট্রেন চলেছে-রাজশাহী-চিলাহাটির ‘বরেন্দ্র এক্সপ্রেস’, খুলনা-চিলাহাটির ‘সীমান্ত এক্সপ্রেস’, পঞ্চগড়-ঢাকার ‘পঞ্চগড় এক্সপ্রেস’ এবং পঞ্চগড়-রাজশাহীর ‘বাংলাবান্ধা এক্সপ্রেস’ ঢাকা-কুড়িগ্রামের ‘কুড়িগ্রাম এক্সপ্রেস’ (ট্রেনটি সাপ্তাহিক ছুটি থাকার কারণে বন্ধ ছিল আগামীকাল থেকে নির্ধারিত সময়ে চলবে এই ট্রেনটি)। এছাড়া সান্তাহার থেকে চলাচল করেছে বগুড়া  কমিউটার এবং কলেজ ট্রেন।উল্লেখ্য,এর আগে সান্তাহার থেকে ৮টি আন্তঃনগর ও ৩টি কমিউটার ট্রেন চালু ছিল।

সান্তাহার রেলওয়ে থানার পরিদর্শক মনজের আলী জানান,ট্রেন চালু হওয়ার কারনে যাত্রীদের সংখ্যা বেড়েছে আমরা তৎপর রয়েছি যাত্রী ব্যতিত প্লাটফর্মে বাহিরের লোক প্রবেশ করতে না পারে, স্বাস্থ্য বিধি মেনে সকল যাত্রী ট্রেনে যাতায়াত করছে কিনা এবং সকলে মাস্ক ব্যবহার করতে বাধ্য করা হচ্ছে পাশাপাশি যারা মাস্ক পরে নাই তাদের মাঝে মাস্ক বিতরন করা হচ্ছে।

এ বিষয়ে সান্তাহার জংশন স্টেশন মাস্টার হাবিবুর রহমান হাবিব বলেন, সান্তাহার জংশন স্টেশন উওরবঙ্গের প্রবেশদ্বার হওয়ার কারণে এবং কিছুদিন আগে নওগাঁ পৌরসভা লকডাউন দেওয়ায় ট্রেনের চাহিদাও বৃদ্ধি পেয়েছে।আমরা চেষ্ঠা করছি যথাযথ স্বাস্থ্য বিধি মেনে সেবা দেওয়ার।

 

আরও সংবাদ