ঢাকা সারা দেশ

পরকিয়ার প্রেমের বলি অবুঝ শিশু : আলভি

সাভার প্রতিনিধি : নির্বাচনের মোহে নিশি ক্ষমতার লোভ কার নেই! তবে নিজের গর্ভে ১০ মাস রাখা শিশুটি ছেড়ে নির্বাচনের মোহে সংসার ছাড়ার নজীর এই প্রথম। অবুঝ শিশু সন্তান ছেড়ে পরকীয়া প্রেমে মাতোয়ারার কারন শুধুমাত্র সংরক্ষিত নারী ইউপি সদস্য নির্বাচনের লোভ ফারজানা ববি নিশির।

মা’র নোংরামিতে অন্ধকারে নিমজ্জিত শিশুর ভবিষ্যৎ। আর অন্য দিকে পরকীয়া প্রেমে রঙ্গ লীলায় নিশি। সম্প্রতি এমন ঘটনা ঘটেছে সাভারে। রাজধানীর যাত্রাবাড়ি থেকে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতার নেশায় ২২ বছরের সংসার আর শিশু সন্তানকে ফেলে পাড়ি জমিয়েছে সাভারের তপুর ঘরে।

খালাতো বোন পরিচয়ে দিবারাত্রি যাতায়াত সাভারের কথিত যুবলীগ নেতা তপুর। এমনটাই অভিযোগ করেছেন ফারজানা ববি নিশির স্বামী আরিফ। আরিফ বলেন, আমার স্ত্রী বিভিন্ন সময় আমার বড় সন্তানকে মানুষিক টর্চার করছে। ছোট্ট শিশুকে বারংবার ফোন করে বকাবকি করে নিশি।

আমাকে যা বলে বলুক, তার নির্বাচন করার দরকার করবে। তিন্তু আমার মন্তানের ভবিষ্যৎ অনিশ্চয়তায় ফেলে কেন। ছেলেটা তিনবেলা ঠিকঠাক খেতে পারছে না। সারা দিন টেনশনে থাকে। আমার ছেলেকে এভাবে মানুষিক টর্চার বন্ধ না হলে আমি আইনগত ব্যবস্থা নেবো।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, নিশি আগে থেকেই খারাপ প্রকৃতির ছিল। তারপরেও আমার সন্তানের দিকে তাকিয়ে আমি কিছু বলি নাই। সব নিরবে সহ্য করে নিয়েছি। এখন তো সংসার ছেলে রেখে পরকীয়া প্রেমের বাগান সাজিয়েছে। নির্বাচনের মোহ একদিন তাকে পথের ভিখারি বানাবে। আমার কথায় তিছু আসে যায় না। নিজের সন্তানই এখন তাকে বিভিন্ন রূপে দেখছে ।

অবুঝ সন্তানের আর্তনাদ একদিন তাকে পথের ভিখারি বানাবে। আরিফের প্রথম শিশু সন্তান জানায়, যুবলীগের শাহীন আঙ্কেল আমাদের সকল অশান্তির মুল। তিনি যে দিন থেকে বাসায় আসা শুরু করেছেন তখন থেকেই তপু আসা শুরু করেছে।

আল্লাহ এই দুইজনের বিচার করবেন। তাদের জন্যই আমাদের সংসারে যতো অশান্তি। এব্যাপারে নিশি, তপু ও শাহীনের সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয় নি। তবে তাদের বক্তব্য পেলে নিউজে তুলে ধরা হবে।

আরও সংবাদ